মিরপুর থেকে বিআরটিএ সনদ জাল করার অপরাধে গ্রেফতার-১

বিডিএফএন টোয়েন্টিফোর.কম

ঢাকা মহানগরীর মিরপুর মডেল থানাধীন এলাকা হতে বিভিন্ন পাবলিক পরীক্ষার সনদ সহ বিআরটিএ সনদ ও বিভিন্ন নামীয় টিন সনদপত্র জাল করার অপরাধে ১ জন গ্রেফতার।

এলিট ফোর্স হিসেবে র‌্যাব আত্মপ্রকাশের সূচনালগ্ন থেকেই আইনের শাসন সমুন্নত রেখে দেশের সকল নাগরিকের নিরাপত্তা সুনিশ্চিত করার লক্ষে অপরাধ চিহ্নিতকরণ, প্রতিরোধ, শান্তি ও জনশৃংখলা রক্ষায় কাজ করে আসছে।

এরই ধারাবাহিকতায় র‌্যাব-৪ এর একটি আভিযানিক দল গোপন সংবাদের ভিত্তিতে (১৩ জানুয়ারী) রাত ২১.৫০ ঘটিকার সময় ডিএমপি ঢাকার মিরপুর মডেল থানাধীন এলাকায় অভিযান পরিচালনা করে বিভিন্ন পাবলিক পরীক্ষার জাল সনদ সহ বিআরটিএ সনদ ও বিভিন্ন নামীয় টিন সনদপত্র তৈরি করে ছাপিয়ে তা বিক্রয় করার অপরাধে ১। জাল সনদ ৩টি, বিআরপিএ জাল প্রাপ্তি রশিদ ১টি, জাল টিন সনদপত্র ৫টি, ল্যাপটপ ১টি, মনিটর ২টি, ৪টি সিপিইউ, প্রিন্টার ২টি, মাউস ৪টি, স্ক্যানার ১টি, টেলিফোন ১টি, কীবোর্ড ২টি, সীল ২টি সহ নিন্মোক্ত ১জন আসামীকে গ্রেফতার করতে সমর্থ হয়।

গ্রেফতারকৃত মোঃ শহিদুল ইসলাম (৪৭), জেলা- খুলনা।

অপরাধের কৌশল ও বিস্তারিতঃ
ধৃত আসামীকে জিজ্ঞাসাবাদে সে তার উপরে উল্লিখিত নাম ঠিকানা প্রকাশ করে। জিজ্ঞাসাবাদে আসামী আরো জানায় যে, সে দীর্ঘদিন যাবত উক্ত স্থানে মিরপুর অনুবাদ কম্পিউটারের দোকান খুলে বিভিন্ন পাবলিক পরীক্ষার সনদপত্র সহ বিআরটিএ সনদ ও বিভিন্ন নামীয় টিন সনদপত্র জাল করে ছাপিয়ে তা বিভিন্ন লোকজনের নিকট মোটা অংকের অর্থের বিনিময়ে বিক্রয় করে আসছে। জব্দকৃত জাল সনদ, বিআরটিএ প্রাপ্তি সনদ ও টিন সনদপত্রের বিষয়ে জিজ্ঞাসাবাদে ধৃত আসামী কোন সদুত্তর দিতে পারে নি।

গ্রেফতারকৃত আসামীর বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় আইনানুগ কার্যক্রম প্রক্রিয়াধীন এবং এই ধরনের অপরাধীদের বিরুদ্ধে র‌্যাবের জোড়ালো অভিযান অব্যাহত থাকবে।